১৫ই জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ৩১শে আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ |
  • প্রচ্ছদ
  • আর্ন্তজাতিক
  • সরকারি কর্মকর্তার অফিস-বাড়িতে মিলল ১০০ কোটির সম্পত্তি
  • সরকারি কর্মকর্তার অফিস-বাড়িতে মিলল ১০০ কোটির সম্পত্তি

    মুক্তি কন্ঠ

    মুক্তিকন্ঠ ডেস্ক :

    বান্ডিল ভরা টাকা আর ব্রিফকেসে সাজানো সব দামি দামি আইফোন, ঘড়ি, আইপ্যাড। এসব যেন কারও জীবনে একটি করেই পাওয়া স্বপ্নের মতো। তবে মিলেছে বিপুল এসব সম্পদ। তাও আবার সরকারি কোনো কর্মকর্তারা বাসা-বাড়িতে। যা দেখে যে কারও চোখ চড়কগাছে ওঠার অবস্থা। আর এমন সবই চোখে দেখেছে দুর্নীতি দমনকারী সংস্থা।

    বৃহস্পতিবার (২৫ জানুয়ারি) ভারতীয় সংবাদমাধ্যম এনডিটিভির প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ভোর থেকে সরকারি এক কর্মকর্তার বাড়িতে অভিযান চালানো হয়েছে। এ সময় তার বাসা-বাড়িতে মিলেছে ১০০ কোটির আয় বহির্ভূত সম্পত্তি। অবিশ্বাস্য এ ঘটনাটি ঘটেছে ভারতের তেলঙ্গানায়।

    সংবাদমাধ্যম জানিয়েছে, রাজ্য পুলিশের দুর্নীতি দমনকারী শাখা এসিবি এসব সম্পত্তি উদ্ধার করেছে। আর অভিযান চালানো ওই সরকারি কর্মকর্তার নাম শিবা বালাকৃষ্ণ। তিনি রাজ্যের রিয়েল এস্টেট রেগুলেটরি অথোরিটির সেক্রেটারি। এর আগে তিনি হায়দরাবাদ মেট্রোপলিটন ডেভেলপমেন্ট অথোরিটির ডিরেক্টর ছিলেন।

    প্রাথমিক তদন্তের পর সংস্থাটি জানিয়েছে, শিবা বিভিন্ন কোম্পানিকে বেআইনিভাবে সহায়তা করেছেন। তাদের পারমিট দিয়েছেন তিনি। এজন্য কোটি কোটি রুপি আর দামি উপহার নিয়েছেন শিবা।

    হিসাব বহির্ভূত এসব সম্পত্তির খোঁজ পেতেই বুধবার ভোর থেকে অভিযান শুরু করে এসিবি। এরপর অফিস ও বাড়ি মিলিয়ে অন্তত ২০ জায়গায় তল্লাশি চালানো হয়। সেদিন ভোর ৫টা থেকে শুরু হলেও রাতভর এ অভিযান চলে। কেবল ওই কর্মকর্তা নয়, তার আত্মীয়দের বাড়িতেও অভিযান চালিয়েছে পুলিশ। এ ঘটনায় শিবা নামের ওই কর্মকর্তার বিরুদ্ধে মামলা করা হয়েছে।

    এসিবি জানিয়েছে, প্রচুর অর্থ অর্জন করেছেন শিবা। যা তার আয়ের সঙ্গে সঙ্গতিপূর্ণ নয়। এসব অর্থ উপার্জনের জন্য তিনি নেজের সরকারি পদকে কাজে লাগিয়েছেন বলে সন্দেহ সংস্থাটির।

    অভিযানের সময় ওই কর্মকর্তার বাড়ি থেকে ১০০ কোটি রুপির সম্পত্তি বাজেয়াপ্ত করা হয়েছে। এরমধ্যে নগদ ৪০ লাখ রুপি ও দুই কেজি সোনার গহনা রয়েছে। এ ছাড়া ৬০টি দামি বিদেশি ঘড়ি, ১৪টি আইফোন, ১০টি ম্যাকবুক ও আইপ্যাড ও ইলেক্ট্রনিক গ্যাজেট রয়েছে। অভিযানে ব্যাংক ডিপোজিট ও ফ্লাটের নথিও উদ্ধার করা হয়েছে বলেও প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়েছে।

    সূত্র : কালবেলা