১৪ই জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ৩০শে আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ |
  • প্রচ্ছদ
  • সারাদেশ
  • শরীয়তপুরে সঞ্জয় রক্ষিতকে গ্রেফতারের প্রতিবাদে মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চের তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ
  • শরীয়তপুরে সঞ্জয় রক্ষিতকে গ্রেফতারের প্রতিবাদে মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চের তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ

    মুক্তি কন্ঠ

    মুক্তিকন্ঠ ডেস্ক :

    শরীয়তপুরের ভেদরগঞ্জে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে লালন সাঁইয়ের গান প্রচার করার অভিযোগে সঞ্জয় রক্ষিতকে গ্রেফতারের বিরুদ্ধে তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানানোর পাশাপাশি এহেন ঘটনার সাথে জড়িতদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানিয়েছে বাংলাদেশ মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চ। সংগঠনের সভাপতি আমিনুল ইসলাম বুলবুল ও সাধারণ সম্পাদক আল মামুন স্বাক্ষরিত এক লিখিত প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে আজ (৩০ এপ্রিল ২০২৪) এই দাবি জানানো হয়েছে।

    লিখিত প্রতিবাদ লিপিতে বলা হয়েছে যে, “শরীয়তপুরের ভেদরগঞ্জে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে লালন সাঁইয়ের গান প্রচার করার অভিযোগে সঞ্জয় রক্ষিতকে গ্রেফতারের ঘটনায় তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাচ্ছে বাংলাদেশ মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চ। এধরণের ন্যাক্কারজনক ঘটনা অসাম্প্রদায়িক বাংলাদেশ বিনির্মাণের পথে চরম অন্তরায়। দেশে বাঙালি বিদ্বেষী ও সাম্প্রদায়িক হিংসাত্মক ঘটনা এবং লালন ফকিরের গানের মর্মবাণী প্রচারে নাগরিককে হেনস্তা করার মাধ্যমে শরীয়তপুরের ভেদরগঞ্জ প্রশাসনের প্রকৃত চেহারা জাতির সামনে উন্মোচিত হয়েছে। মহাত্মা লালন সাইঁয়ের গানের দুই লাইন ফেসবুক স্টোরিতে শেয়ার করায় শরীয়তপুরের ভেদরগঞ্জ উপজেলার সঞ্জয় রক্ষিতকে ধর্মানুভূতিকে আঘাত হেনেছে বলে মৌখিক অভিযোগের ভিত্তিতে আটক করে আদালতে পাঠিয়ে মুচলেকা দিয়ে ছাড়ার ঘটনা সাম্প্রদায়িক মৌলবাদী অপশক্তির এজেণ্ডা বাস্তবায়ন করার শামিল। লাখো শহীদের রক্তের বিনিময়ে অর্জিত বঙ্গবন্ধুর অসাম্প্রদায়িক স্বাধীন বাংলাদেশের আইনশৃঙ্খলা রক্ষায় নিয়োজিত বাহিনীর দায়িত্ব হচ্ছে নাগরিক হিসেবে কেউ বিপন্ন হলে তাকে পর্যাপ্ত নিরাপত্তা দেওয়া। কোন নিরপরাধ নাগরিককে জেলে ঢুকিয়ে পরিস্থিতি শান্ত করার কৌশল নেওয়া মৌলবাদী অপশক্তির নিকট আত্মসমর্পণ বা পরাজয়ের সুস্পষ্ট প্রমাণ ইঙ্গিত বহন করে। প্রশাসনের ভিতর ঘাপটি মেরে থাকা সাম্প্রদায়িক মৌলবাদী অপশক্তির এজেন্টদের চিহ্নিত করে চাকুরীচ্যুত করতে হবে। মুক্তিযুদ্ধের স্বপক্ষের শক্তির সরকারের নিকট দাবি, সারাদেশে বিভিন্ন সময়ে ঘটে যাওয়া বাঙালি বিদ্বেষী ও সাম্প্রদায়িক হিংসাত্মক ঘটনাগুলো তদন্ত করতে হবে। সম্প্রতি লালন ফকিরের গানের মর্মবাণী প্রচারের দায়ে একজন নাগরিককে হেনস্তা করার সাথে জড়িতদের বিচার করার জন্য অবিলম্বে একটি বিচার বিভাগীয় তদন্ত কমিশন গঠন করে দায়ীদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি নিশ্চিত করতে হবে। সাম্প্রদায়িক মৌলবাদী অপশক্তির ধর্মভিত্তিক রাজনীতি স্থায়ী ভাবে নিষিদ্ধ করতে হবে। জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্বপ্নের সোনার বাংলাদেশে কোন সাম্প্রদায়িক পাকিস্তানি মৌলবাদী অপশক্তির জায়গা হবে না। দেশপ্রেমিক সঞ্জয় রক্ষিতকে উদ্দেশ্যপ্রণোদিত ভাবে গ্রেফতার ও হেনস্তার সাথে জড়িতদের বিরুদ্ধে কঠোর শাস্তিমূলক ব্যবস্থা গ্রহণের দাবি জানাচ্ছে বাংলাদেশ মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চ। অন্যথায় দেশব্যাপী কঠোর কর্মসূচী ঘোষণা করা হবে।”