১৬ই জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ১লা শ্রাবণ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ |
শিরোনাম :
রাজাকার শ্লোগানধারীদের ছাত্রত্ব বাতিলসহ গ্রেফতারের দাবিতে মুক্তিযোদ্ধার সন্তানদের মানববন্ধন ও বিক্ষোভ মিছিল: মুক্তিযোদ্ধা কোটা পুনর্বহালের রায় কার্যকর করার দাবিতে শাহবাগে সমাবেশ ও বিক্ষোভ মিছিল উন্মুক্ত হলো ঢাকা-সুইজারল্যান্ড সরাসরি ফ্লাইটের দ্বার ৫ কারণে কোপা যাবে আর্জেন্টিনায় দেশে ফিরলেন ওবায়দুল কাদের দেশের অর্থনৈতিক অঞ্চলে আরব আমিরাতের বিনিয়োগ চান প্রধানমন্ত্রী ড. ইউনূস আসামি, উনি এভাবে কথা বলতে পারেন না’ গাজায় মার্কিন যুদ্ধবিরতি প্রস্তাবনার জবাবে যা জানাল ফিলিস্তিনিরা দিল্লি পৌঁছেছেন প্রধানমন্ত্রী মুক্তিযোদ্ধা কোটা পুনর্বহালের সিদ্ধান্তকে স্বাগত জানিয়ে ঢাবিতে আনন্দ মিছিল
  • প্রচ্ছদ
  • অপরাধ >> আইন আদালত >> ক্যাম্পাস >> শিক্ষা
  • অবৈধ ঘোষণার পরও রংপুরে দুই নার্সিং কলেজে চলছে কার্যক্রম
  • অবৈধ ঘোষণার পরও রংপুরে দুই নার্সিং কলেজে চলছে কার্যক্রম

    মুক্তি কন্ঠ

    বৈধ কাগজ ও অনুমোদন না থাকায় ১৯ জুলাই রংপুরের স্মার্ট লিভিং নার্সিং কলেজ এবং গ্রীনপিস নার্সিং কলেজের কার্যক্রম অবৈধ ঘোষণা করে চিঠি দেয় স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়। তবে, এতে বন্ধ হয়নি প্রতিষ্ঠান দুটির কার্যক্রম। চালু আছে ভর্তি ও পাঠদান।

    টেলিভিশনের ক্যামেরা দেখে ছবি নিতে বাধা দেন কলেজের শিক্ষক ও কর্মচারীরা। যদিও স্মার্ট লিভিং নার্সিং কলেজ কর্তৃপক্ষের দাবি কাগজপত্র ঠিক করতে সময় দেওয়া হয়েছে তাদের।

    রংপুর স্মার্ট লিভিং নার্সিং কলেজের প্রশাসনিক কর্মকর্তা সুজাউদ্দৌল্লা বলেন, “আমাদের ভর্তি কার্যক্রম শেষ হওয়ার পর ওনারা ভিজিটে এসে বলে কাগজপত্র ঠিক করতে, আমাদের তারা সময় দিয়েছে আমরা কাগজ ঠিক করছি”।

    স্মার্ট লিভিং নার্সিং কলেজের পাশাপাশি একই ভবনে চলছে গ্রীনপিস নার্সিং কলেজের কার্যক্রম।

    অবৈধ এসব নার্সিং কলেজে পড়তে দেড় থেকে ৪ লাখ পর্যন্ত খরচ করতে টাকা খরচ করতে হয়েছে শিক্ষার্থীদের।

    নার্সিং কলেজ দুটির কার্যক্রম তদন্তে কমিটি গঠন করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন সিভিল সার্জন।

    রংপুরের সিভিল সার্জন ডা. জাহাঙ্গীর কবির বলেন, “এরই মধ্যে আমার অফিস থেকে তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে তারা সরজমিনে গিয়ে তদন্ত প্রতিবেদন দিবে তারপর যা ব্যবস্থা নেওয়ার আমি করবো”।

    প্রতিষ্ঠান দুইটিতে বর্তমানে শিক্ষার্থী ১২০ জন।

    তথ্য সুত্র: ইনডিপেনডেন্ট ২৪ ডট.টিভি